ছেলে প্রয়োজনে মায়ের সতর দেখতে পারবে কি-না?

ফতোয়া নং ৯/১৭৫০

বরাবর,
প্রধান মুফতি সাহেব দা.বা.
কেন্দ্রীয় দারুল ইফতা বাংলাদেশ
তত্ত্ববধানে- শাইখ যাকারিয়া ইসলামিক রিসার্চ সেন্টার ঢাকা
কুড়াতলী, খিলক্ষেত, ঢাকা-১২২৯

বিষয়: সতর প্রসঙ্গে
মুহতারাম, আমার মা খুবই অসুস্থ। অনেক সময় আমাকেও মায়ের খেদমত করতে হয়। কখনও খেদমত করতে গিয়ে অপারগতা, অনিচ্ছা সত্ত্বেও তার সতরের দিকে আমার নজর পড়ে। আমার বাবা জীবিত। তিনি বাড়ি থেকে দূরে একটি মাদরাসায় খেদমত করেন। বাড়িতে অন্য কোনো মহিলাও নেই।
মুহতারামের নিকট আমার জানার বিষয় এই যে, এহেন পরিস্থিতিতে আমার ও আমার বাবার করণীয় কি? বাবার জন্য কি এই অবস্থায়ও বাড়ি থেকে দূরে থাকা ঠিক আছে কিনা?

নিবেদক
মাও. হামিদুল ইসলাম

الجواب باسم ملهم الصدق والصواب

ইসলামী শরীয়া মতে স্বামীর জন্য স্বশরীরে স্ত্রীর সেবা আবশ্যকীয় নয়। তবে সন্তানের জন্য সার্বিকভাবে তার বাবা-মায়ের খেদমত করা আবশ্যক। অবশ্য সন্তান বাবা-মায়ের খেদমত করতে গিয়ে সতরে দৃষ্টিপাত এবং বিপরীত লিঙ্গের ক্ষেত্রে শরীর স্পর্শ করতঃ شہوت (কামভাব) এড়ানো আবশ্যক।

সুতরাং প্রশ্নোক্ত সুরতে আপনার বাবার উপর স্বশরীরে আপনার মায়ের খেদমত আবশ্যক নয় বিধায় তিনি বাহিরে দ্বীনি খেদমত করতে পারেন বটে তবে স্ত্রীর প্রয়োজন হিসেবে আপনার বাবার কর্তব্য হলো আপনার মায়ের জন্য একজন সেবিকা নির্ধারণ করা। উপরোন্তু ছেলে হিসেবে আপনারও কর্তব্য হলো স্বশরীরে কিংবা সেবিকার মাধ্যমে মায়ের খেদমত আঞ্জাম দেয়া। ফলে একজন সেবিকা নির্ধারণের মাধ্যমে আপনি এবং আপনার বাবা মায়ের খেদমত আঞ্জাম দেয়ার সাথে সাথে সতরের পর্দা লঙ্গনের মত যাবতীয় জটিল সমস্যা থেকে মুক্ত হতে পারেন। হ্যাঁ, সেবিকা না পাওয়া গেলে কিংবা পাওয়ার পূর্ব পর্যন্ত আপনার মায়ের খেদমত চালিয়ে যাওয়া আবশ্যক। এ ক্ষেত্রে অনিচ্ছা সত্ত্বেও কিংবা প্রয়োজনে দৃষ্টি পড়ে গেলেও আশা করা যায় তাতে কোনো গুনাহ হবে না।

الأدلة الشرعية

سورة الاسراء: الاية: 23

وَقَضَى رَبُّكَ أَلَّا تَعْبُدُوا إِلَّا إِيَّاهُ وَبِالْوَالِدَيْنِ إِحْسَانًا إِمَّا يَبْلُغَنَّ عِنْدَكَ الْكِبَرَ أَحَدُهُمَا أَوْ كِلَاهُمَا فَلَا تَقُلْ لَهُمَا أُفٍّ وَلَا تَنْهَرْهُمَا وَقُلْ لَهُمَا قَوْلًا كَرِيمًا

تفسير القرطبى: 3/90 (التوفيقية)

(وعاشروهن بالمعروف) على أن المرأة إذا كانت لا يكفيها خادم واحد أن عليه أن يخدمها قدر كفايتها، ….وقال الشافعي وأبو حنيفة: لا يلزمه إلا خادم واحد، وذلك يكفيها خدمة نفسها،

ملتقى الابحر: 4/199 (المنار)

ويحرم النظر إلى العورة إلا عند الضرورة كالطبيب  والخاتن والخافضة والقابلة والحاقن ولا يتجاوز قدر الضرورة … و من محارمه و أمة غيره إلى الوجه والرأس والصدر والساق والعضد  ولا بأس بمسه  بشرط أمن الشهوة في النظر والمس  ولا ينظر إلى البطن والظهر والفخذ

فتاوى قاضيخان: 1/383 (قديمي كتب خانة)

امرأة لها أب زمن ليس له من يقوم عليه وزوجها يمنعها عن الخروج إليه وتعاهده كأن لها أن تعصي زوجها وتطيع الوالد مؤمناً كأن الوالد أو كافراً لأن القيام بتعاهد الوالد فرض عليها فيقدم على حق الزوج.

 والله أعلم بالصواب 

كتبه
مهدى حسن
المتمرن بدار الإفتاء والإرشاد المركزية
بمركز الشيخ زكريا للبحوث الإسلامية داكا
7/1/1441هـــ
শেয়ার করুন

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *